আন্তঃবিভাগীয় কুইজ প্রতিযোগিতা ‘বাংলা বিশারদ-১৪২৫’ অনুষ্ঠিত

রাজশাহী কলেজ বার্তা | | February 21, 2019 at 12:09 am

মাতৃভাষা বাংলার প্রতি সম্মান জানিয়ে শহীদদের আত্মত্যাগের স্মরণে স্ট্যাটিস্টিক্যাল পাইওনিয়ার ক্লাব এবং রাজশাহী কলেজ প্রশাসনের সহায়তায় প্রথমবারের মতো গত ১৭,১৮ এবং ২০ ফেব্রুয়ারি অনুষ্ঠিত হয় বাংলা ভাষা ও সাহিত্য নির্ভর আন্তঃবিভাগ কুইজ প্রতিযোগীতা “বাংলা বিশারদ- ১৪২৫”।

কলেজের উচ্চমাধ্যমিক বিজ্ঞান বিভাগ, মানবিক বিভাগ ও ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগ  হতে তিনটি দল সহ সম্মান শ্রেণীর ২১ টি বিভাগ প্রতিযোগীতায় অংশগ্রহণ করে। প্রতিটি বিভাগ হতে ৩ জন করে শিক্ষার্থী দল হিসেবে স্ব স্ব বিভাগের প্রতিনিধিত্বকারী হিসেবে বাংলায় নিজেদের জ্ঞান এবং দক্ষতা প্রকাশের সুযোগ পায়। তিন পর্বে অনুষ্ঠিতব্য এই প্রতিযোগিতায় বিচারক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন ড. নিতাই কুমার সাহা (সহকারী অধ্যাপক, মনোবিজ্ঞান বিভাগ), শারমিন শাকিলা (সহকারী অধ্যাপক, উদ্ভিদবিজ্ঞান বিভাগ), মোঃ জাকির হোসাইন (প্রভাষক, দর্শন বিভাগ), মোঃ কামরুজ্জামান সরকার (সহকারী অধ্যাপক, সমাজকর্ম বিভাগ), ড নাজনীন সুলতানা (অধ্যাপক, সমাজবিজ্ঞান বিভাগ), সাগর কুমার মন্ডল (সহযোগী অধ্যাপক, সংস্কৃত বিভাগ), মো মিজানুর রহমান মিঠু (প্রভাষক, পদার্থবিজ্ঞান বিভাগ), রতন উদ্দিন আহম্মদ (সহকারী অধ্যাপক, ইতিহাস বিভাগ)।

গত ২০ ফেব্রুয়ারি রাজশাহী কলেজ কেন্দ্রীয় মিলনায়তনে প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত পর্ব অনুষ্ঠিত হয়। গ্রুপ পর্ব হতে নির্বাচিত সেরা দু দল রসায়ন বিভাগ এবং উদ্ভিদবিজ্ঞান বিভাগ মধ্যকার এই চূড়ান্ত পর্বে প্রধান অতিথি হিসেবে সকলের মাঝে উপস্থিত ছিলেন কলেজের সম্মানিত অধ্যক্ষ মহোদয় প্রফেসর মহাঃ হবিবুর রহমান। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপাধ্যক্ষ মহোদয় প্রফেসর আল-ফারুক চৌধুরী।প্রতিযোগীতায় সভাপতিত্ব করেন পরিসংখ্যান বিভাগের বিভাগীয় প্রধান আব্দুল মজিদ আকন্দ এবং আহ্বায়ক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন মোঃ পারভেজ রানা (প্রভাষক, পরিসংখ্যান বিভাগ)।

বাংলা ব্যাকরণ এবং সাহিত্যে অভাবনীয় পান্ডিত্যে মেতে উঠে শেষ দিনের আয়োজন। রসায়ন বিভাগ এবং উদ্ভিদবিজ্ঞানের মেধার স্ফুরণে জমে উঠা বাংলার এই লড়াই উপভোগ করে কলেজের প্রায় পাঁচশত শিক্ষার্থী। শেষ পর্যন্ত মেধার এই লড়াইয়ে চুলচেরা বিশ্লেষণে বিজয়ের মুকুট ঘরে তোলে রসায়ন বিভাগ। এছাড়াও অংশগ্রহণকারী দলের পাশাপাশি উপস্থিত শিক্ষার্থীদের জন্য ছিলো স্পট কুইজের ব্যবস্থা। উপাধ্যক্ষ মহোদয়ের পরিচালনায় স্পট কুইজে পুরস্কৃত করা হয় আরো তিন মেধাবী শিক্ষার্থীকে।

বাংলা ভাষার এমন আয়োজনকে মূল্যায়ন করতে গিয়ে নাজনীন সুলতানা মহোদয় বলেন “রাজশাহী কলেজ প্রশাসন এবং পরিসংখ্যান বিভাগ এ প্রতিযোগিতা আগামী দিনগুলোতেও অব্যাহত রাখবেন বলে আশা রাখি। অন্যদিকে মোঃ কামরুজ্জামান সরকার মহোদয় বলেন, “এমন আয়োজন শুধুমাত্র রাজশাহী কলেজের বিভাগসমূহেই নয় বরং রাজশাহী বিভাগ তথা জাতীয় পর্যায়ে আয়োজন করা উচিত”।

প্রতিযোগিতার শেষাংশে পুরস্কার বিতরণী পর্বে অধ্যক্ষ মহোদয় বিজয়ী ও রানার্স আপ দল এবং স্পট কুইজে বিজয়ী শিক্ষার্থীদের পুরস্কার প্রদাণ করেন। সেই সাথে পরিসংখ্যান বিভাগ ও স্ট্যাটিস্টিক্যাল পাইওনিয়ার ক্লাব হতে যুগোপযোগী এবং সৃজনশীল ঘরানার এই আয়োজন দেখে সর্বোপরি সন্তুষ্টি ও শুভকামনা জ্ঞাপন করেন।

Leave a Reply

avatar
  Subscribe  
Notify of