জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের রিলিজ স্লিপ সম্পর্কিত তথ্য

রাজশাহী কলেজ বার্তা | | November 18, 2016 at 9:49 am

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের রিলিজ স্লিপ নিয়ে কিছু জিজ্ঞাসা ও উত্তর দেওয়া হলো নিচে। আবেদন করার সময় এই বিষয়ে গুরুত্ব দিলে ১০০% পর্যন্ত ভর্তির নিশ্চয়তা থাকে।

প্রশ্ন: রিলিজ স্লিপ কী?
উত্তর: যে সকল শিক্ষার্থী (ক)পয়েন্ট দ্বারা উত্তীর্ণ হয়নি, (খ) ভর্তি বাতিল করেছে, (গ) মেধা তালিকায় স্থান পেয়েও বরাদ্দকৃত বিষয়ে ভর্তি হয়নি, সে সকল শিক্ষার্থী রিলিজ স্লিপের মাধ্যমে ৫টি কলেজে আবেদন করে ১টি কলেজে ভর্তির হওয়ার সুযোগ পাবে।

প্রশ্ন: রিলিজ স্লিপের আবেদনে কি আমি আমার পূর্বের কলেজে আবেদন করতে পারব?
উত্তর: হ্যাঁ পারবে। তুমি ঐ কলেজসহ সর্বমোট ৫টি কলেজে নতুন নতুন বিষয় নির্বাচন করে আবেদন করতে পারবে।

প্রশ্ন: রিলিজ স্লিপের আবেদন ফরম কোথায় পাওয়া যাবে?
উত্তর: শুধুমাত্র অনলাইনে রিলিজ স্লিপের আবেদন ফরম পূরণ করা যাবে। এটি কলেজ থেকে দেয়া হয় না।

প্রশ্ন: রিলিজ স্লিপের ফরম কি কলেজ গুলোতে জমা দিতে হবে?
উত্তর: না। কলেজে জমা দেয়ার দরকার নেই। এটি তোমার কাছে রেখে দিবে।

প্রশ্ন: আমি কোন ৫টি কলেজ নির্বাচন করব?
উত্তর: তোমার ইচ্ছানুযায়ী যে কোন এলাকার যে কোন কলেজে অর্থাৎ সমগ্র বাংলাদেশে আবেদন করতে পারবে।

প্রশ্ন: রিলিজ স্লিপের ফলাফল কিভাবে জানব?
উত্তর: আবেদন শেষ হওয়ার ৫-৭ দিন পর ফলাফল প্রকাশিত হবে এবং আগের মতো মোবাইল থেকে এসএমএস দিয়ে তুমি তোমার ফলাফল জানতে পারবে।

প্রশ্ন: রিলিজ স্লিপের মাধ্যমে আবেদন করলে চান্স পাওয়ার নিশ্চয়তা কতটুকু?
উত্তর: জেলা শহরের কলেজগুলোতে শূন্য আসন সংখ্যা খুবই কম। অপর দিকে উপজেলা পর্যায়ের কলেজগুলো অনেক বেশি আসন খালি থাকে। তাই আবেদন করার সময় এই বিষয়টি গুরুত্ব দিলে ১০০% পর্যন্ত ভর্তির নিশ্চয়তা থাকে।

প্রশ্ন : রিলিজ স্লিপ কোথায় কিভাবে পূরণ করতে হবে? অথবা, রিলিজ স্লিপের আবেদন কোথায় করতে হবে?
উত্তর : রিলিজ স্লিপের আবেদন করতে হবে অনলাইনে। রিলিজ স্লিপ সংক্রান্ত জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজ্ঞপ্তিতে অনলাইনে আবেদনের ওয়েবসাইট বা লিংক দেওয়া থাকবে সময় মত। এই ওয়েবসাইটে গিয়ে নিজে নিজে অথবা, কম্পিউটার দেকানে গিয়েও করা যাবে।

প্রশ্ন : রিলিজ স্লিপ পূরণ করতে কী কী লাগবে?
উত্তর: তোমার রোল নম্বর ও পিন নম্বর দিয়েই আবেদন করা যাবে।

প্রশ্ন : রিলিজ স্লিপ-এ সরকারি কলেজ কয়টা এবং বেসরকারি কলেজ কয়টা চয়েস দেওয়া যায়?
উত্তর : সরকারি-বেসরকারি? মোট ৫টা কলেজ চয়েস দেওয়া যাবে।

প্রশ্ন : কোন কলেজে কত সিট খালি আছে, তা কিভাবে জানবো?
উত্তর : অনলাইনে রিলিজ স্লিপ ফরম পূরণ করার সময় কলেজের পাশে কয়টা করে সিট খালি আছে, তা দেখাবে।

প্রশ্ন : ২য় মেরিট লিস্ট-এ যে সাব্জেক্ট এসেছে, সেটাতে ভর্তি হবো না, রিলিজ স্লিপ নিতে পারবো?
উত্তর : পারবে।

প্রশ্ন : রিলিজ স্লিপের মাধ্যমে যে সাবজেক্ট পাবো, তা কি চেঞ্জ করা করা যাবে?
উত্তর : না, চেঞ্জ করা যাবে না বা মাইগ্রেসেন করা যাবে না। রিলিজ স্লিপে যে সাবজেক্ট পাবে, সে সাবজেক্টেই পড়তে হবে।

প্রশ্ন : যদি রিলিজ স্লিপে আবেদন করার পর কোন কলেজে সুযোগ না পাই তাহলে কি আর ভর্তি হতে পারবো না?
উত্তর : ১ম রিলিজ স্লিপে ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন হওয়ার পর আসন শূন্য থাকা সাপেক্ষে ২য় রিলিজ স্লিপ ছাড়া হয়। তাই ১ম রিলিজ স্লিপে সুযোগ না পেলে আবার ২য় রিলিজ স্লিপে আবেদন করার সুযোগ আছে।

প্রশ্ন : ২য় রিলিজ স্লিপের আবেদন প্রক্রিয়া কেমন?
উত্তর : ২য় রিলিজ স্লিপের আবেদন প্রক্রিয়া ১ম রিলিজ স্লিপের মতই। যারা ১ম রিলিজ স্লিপে সুযোগ পেয়েও ভর্তি হবেন না তারা ২য় রিলিজ স্লিপের আবেদনের সুযোগ পাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.