শীতের ছুটি শেষে আবারো স্বরূপে দেশসেরা রাজশাহী কলেজ

রাজশাহী কলেজ বার্তা | | January 4, 2018 at 7:10 pm

বাদশা বুলবুল: মহান বিজয় দিবস, শীতকালীন এবং যীশুখ্রিস্টের জন্মদিন উপলক্ষে একটানা ১৭ দিন বন্ধ ছিল দেশের শ্রেষ্ঠ বিদ্যাপীঠ রাজশাহী কলেজ ক্যাম্পাসটি। লম্বা এই বিরতি শেষ হয়েছে ৩১ ডিসেম্বর ২০১৭। ছুটি শেষ হলেও প্রথম দিকে ক্যাম্পাসে শিক্ষার্থীদের আনা-গনা তেমন একটা ছিলো না। তবে প্রতিদিনই ক্যাম্পাসে বাড়তে থাকে শিক্ষার্থীদের আনা-গনা। এখন পুরো দমেই শিক্ষার্থীদের আনা-গনায় মুখরিত এই কলেজ ক্যাম্পাসটি। শিক্ষার্থীরাও ক্লাস-পরীক্ষার ফাঁকে আড্ডা-গানেও বেশ মেতেছে।

সাময়িক সময়ের হারানো তারুণ্য ফিরে পেতে শুরু করেছে প্রকৃতির অপরুপে ঘেরা এই আঙিনা। এতটা দিন যে সবুজ পাতাগুলো যত্রতত্র জীর্ণশীর্ণ ছড়ানো-ছিটানো ছিল, তা যেন পুনরায় প্রাণ ফিরে পাচ্ছে। শীতের আগমন উপলক্ষে রাজশাহী কলেজ ক্যাম্পাসের বিভিন্ন জায়গা লাগানো হয়েছে বাহারি রকমের সব ফুলগাছ। সংস্কার করা হয়েছে কলেজের বিভিন্ন রাস্তা। ছাত্রছাত্রীদের উপস্থিতিতে আবারো মুখরিত হয়ে উঠেছে ক্লাসরুমগুলো। এতটা দিন ক্যাম্পাসের বাইরে থেকে ক্যাম্পাসকে খুব বেশি মিস করেছেন শিক্ষার্থীরা। তাই ক্লাস শেষে আড্ডায় মেতে পুষিয়ে নিতে চান সময়গুলো।

তেমনি একজন কলেজের একাদশ শ্রেণির বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী মোঃ আশানুল হক কিরণ। ‘ভাবা যায়, দীর্ঘ ১৭ দিন ক্যম্পাসের বাইরে ছিলাম। এ সময়টাকে মনে হয়েছে যেন বন্দী জীবন-যাপন করেছি। এই চত্বরে পা রাখতেই মনে হচ্ছিল এখানকার প্রতিটি ইঞ্চি মাটি আমার আপন। এ ভূমি আমার। এ চত্বর আমার হাজার বছরের পরিচিত। প্রাণের ক্যাম্পাসে ফিরে সত্যিই প্রাণ ফিরে পেলাম।’ দীর্ঘ ১৭ দিনের ছুটি কাটিয়ে এসে এভাবেই স্বস্থির নিঃশ্বাস ফেলে ক্যাম্পাসে ফেরার আনন্দ অনুভূতি শেয়ার করছিলেন কিরণ।আশানুল হক কিরণের মতোই উৎফুল্ল ইতিহাস বিভাগের শিক্ষার্থী রুকাইয়া মিমের কণ্ঠস্বরও। চোখে-মুখে তার আনন্দের ঝিলিক। বললেন, অনেকটা অনিচ্ছা নিয়েইএতদিন বাড়িতে ছিলাম। দীর্ঘ ১৭ দিন পর আজ মনে হলো প্রাণ খুলে শ্বাস-প্রশ্বাস নিয়েছি।’

সাগর কুমার আর নাজমুন নাহার রুমির প্রাণবন্ত আড্ডাবাজিতে ধরা পড়লো আনন্দের বহিঃপ্রকাশ! অনুভূতি জানতে চাইতেই ঠোঁটের কোণে জেগে উঠলো হাসির রেখা। কণ্ঠে কণ্ঠ মিলিয়ে চারজন গেয়ে উঠলেন, “কথা হবে কারণে আর অকারণে, দেখা হবে ক্যাম্পাসের প্রতিটি আড্ডায়, সাময়িক বৈরিতায়…।”

কলেজের বকুলতলায় চোখে পড়ে মাহমুদা, রুমা, তানিয়া, জিলুফা, শামীম, জনি, রনি, রবি নামের একদল শিক্ষার্থী ক্লাসের ফাঁকে বসে আড্ডা দিচ্ছিলেন। তারাও তাদের অনুভূতি শেয়ার করছিলেন সবার সাথে।

এ সম্পর্কে জানতে চাইলে সমাজবিজ্ঞান বিভাগের অফিস সহকারী মো: এহসানুল কবির জানান ,শীতের এই ছুটিতে কলেজে ক্লাস বন্ধ থাকলেও চলছিল অফিসিয়াল সকল কার্যক্রম। তবে শিক্ষার্থীদের অনেক মিছ করছিলাম । সকলের সাথে সাক্ষাৎ পেয়ে ভালোই লাগছে বলেও জানান তিনি।কলেজের উপাধ্যক্ষ প্রফেসর আল-ফারুক চৌধুরী বলেন, ছুটি শেষে যথারীতিতে প্রতিষ্ঠানের ক্লাস-পরীক্ষাসহ সব একাডেমিক ও প্রশাসনিক কার্যক্রম পুরোদমে শুরু হয়েছে।

তিনি আরো বলেন, নতুন বছরের প্রথম দিন কলেজের অধ্যক্ষ শিক্ষক-কর্মচারীদের গোলাপ ফুল দিয়ে ইংরেজি নতুন বছরের শুভেচ্ছা জানান।

2 comments on “শীতের ছুটি শেষে আবারো স্বরূপে দেশসেরা রাজশাহী কলেজ

Leave a Reply

Your email address will not be published.